সামাজিক বিজ্ঞান

মর্লি-মিন্টো সংস্কার আইন, ১৯০৯

১৮৫৮ সালের পর থেকে যে শাসনতান্ত্রিক সংস্কার আইন প্রবর্তন হয়, তার মধ্যে ১৯০৯ সালের সংস্কার আইন বেশ উল্লেখযােগ্য। এ আইনের বৈশিষ্ট্যগুলাের মধ্যে উল্লেখযােগ্য বৈশিষ্ট্যসমূহ নিম্নে দেওয়া হল :

১. কেন্দ্রীয় ও প্রাদেশিক পরিষদের সদস্য সংখ্যা বৃদ্ধি করা হয়। গভর্নর জেনারেলের শাসন পরিষদের সদস্য সংখ্যা ১৬ থেকে ৬০ জনে উন্নীত করা হয়।

২. গভর্নর জেনারেলের নির্বাহী পরিষদে চার শ্রেণীর সদস্য রাখার ব্যবস্থা করা হয়। যথা,

  • পদাধিকার বলে সদস্য;
  • মনােনীত সরকারি সদস্য;
  • মনােনীত বেসরকারি সদস্য এবং
  • নির্বাচিত সদস্য।

৩. এ আইনের মাধ্যমে পরিষদের ক্ষমতা বৃদ্ধি করা হয়।

৪. মুসলমানদের জন্য পৃথক নির্বাচন-ব্যবস্থা স্বীকৃত হয়।

৫. এ আইনের ফলে সর্বপ্রথম ব্রিটিশ ভারতে প্রতিনিধিত্বশীল ব্যবস্থার ধারণা স্বীকৃত হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button