বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২ সম্পর্কিত তথ্য

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২

বাংলাদেশ ২০২৩ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে তার দ্বিতীয় স্যাটেলাইট ‘বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২’ উৎক্ষেপণ করতে যাচ্ছে। ১২ মে ২০১৮ সালে মহাকাশে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১’ উৎক্ষেপণের মাধ্যমে, বাংলাদেশ স্যাটেলাইটের অভিজাত ক্লাবের ৫৭ তম সদস্য হয়েছে। বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ প্রকল্পে ব্যয় হয়েছে ২ হাজার ৭৬৫ কোটি টাকা।

স্যাটেলাইটটি পৃথিবী থেকে ৩৬,০০০ কিলোমিটার দূরে অবস্থি। এটি বাংলাদেশ এবং দক্ষিণ এশিয়ার অন্যান্য দেশে পরিষেবা প্রদান করে। বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২ উৎক্ষেপণের মাধ্যমে বাংলাদেশ অপটিক্যাল ও রাডার ইমেজ ও অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে পৃথিবী পর্যবেক্ষণে স্বনির্ভর হয়ে উঠবে।

বাংলাদেশী নিরাপত্তা এবং আইন প্রয়োগকারী সংস্থার নিরাপত্তা চিত্র প্রয়োজন যা বাণিজ্যিকভাবে উপলব্ধ নয়। বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২ সেই প্রক্রিয়া সহজ করবে। বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২ শুধুমাত্র বাণিজ্যিক উদ্দেশ্যে উৎক্ষেপণ করা হবে না। এটি চর এবং উপকূলীয় সাইট সহ দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলকে কভার করবে।

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২ উৎক্ষেপণের লক্ষ্যে, বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি লিমিটেড (বিএসসিএল) ২ ফেব্রুয়ারি ২০২২ তারিখে রাশিয়ান কোম্পানি গ্লাভকোসমসের সাথে একটি সহযোগিতা চুক্তি স্বাক্ষর করে। চুক্তিটি সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) নামে পরিচিত, উভয় পক্ষই বিস্তারিত প্রযুক্তিগত বিষয়ে কাজ করবে এবং আর্থিক সমস্যা এমওইউ স্বাক্ষরের মুহূর্ত থেকে কার্যকর হয় এবং ৩১ ডিসেম্বর ২০২৬ পর্যন্ত বৈধ থাকবে।

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২ সম্পর্কিত তথ্য

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Scroll to top