বাংলাদেশ বিষয়াবলী

বঙ্গবন্ধুর জন্ম, পরিবার, বেড়ে ওঠা, শিক্ষাজীবন ও রাজনীতিতে হাতেখড়ি

বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে চলতি ঘটনার ধারাবাহিক আলােচনায় এবার থাকছে স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম, পরিবার, বেড়ে ওঠা, শিক্ষাজীবন ও রাজনীতিতে হাতেখড়ি সম্পর্কে।

বঙ্গবন্ধুর জন্ম

বাংলাদেশের স্বাধীনতাসংগ্রামের মহানায়ক জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯২০ সালের ১৭ মার্চ (বুধবার) তৎকালীন গােপালগঞ্জ মহকুমার পাটগাতী ইউনিয়নের টুঙ্গিপাড়া গ্রামের ঐতিহ্যবাহী শেখ পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন জন্মের পর নানা শেখ আবদুল মজিদ তাঁর নাম রাখেন মুজিব মুজিব’ শব্দের অর্থ সঠিক উত্তরদাতা

পরিবার

বঙ্গবন্ধুর পিতার নাম শেখ লুৎফর রহমান এবং মাতা সায়েরা খাতুন তাঁর পিতা পেশায় ছিলেন মাদারীপুর মহকুমায় দেওয়ানি কোর্টের সেরেস্তাদার মা ছিলেন গৃহিণী ছয় ভাইবােনের (চার বােন ও দুই ভাই) মধ্যে বঙ্গবন্ধু ছিলেন সবার মধ্যে তৃতীয়, ভাইদের মধ্যে বড় বঙ্গবন্ধুর ডাকনাম ছিল ‘খােকা বঙ্গবন্ধুর স্ত্রীর নাম বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বঙ্গবন্ধু তাঁকে ‘রেণু’ নামে ডাকতেন বঙ্গবন্ধু পাঁচ সন্তানের (শেখ হাসিনা, শেখ কামাল, শেখ জামাল, শেখ রেহানা ও শেখ রাসেল) পিতা ছিলেন

শিক্ষাজীবন

স্কুলজীবন: বঙ্গবন্ধু ১৯২৭ সালে সাত বছর বয়সে স্থানীয় গিমাডাঙ্গা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভর্তি হন ওই স্কুলে তিনি তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত লেখাপড়া করেন এরপর তিনি গােপালগঞ্জ পাবলিক স্কুলে চতুর্থ শ্রেণিতে ভর্তি হন সপ্তম শ্রেণিতে পড়ার সময় (১৯৩৪ সালে) বঙ্গবন্ধুর চোখের রােগ দেখা দেয় হঠাৎ বেরিবেরি রােগে আক্রান্ত হয়ে তার হার্ট দুর্বল হয়ে পড়ে কলকাতার বড় ডাক্তার শিবপদ ভট্টাচার্য, এ কে রায় চৌধুরী, আরও অনেকে বঙ্গবন্ধুর চিকিৎসা করেন

প্রায় দুই বছর পর ১৯৩৬ সালে আবার চোখের সমস্যা দেখা দেয় এ সময় বঙ্গবন্ধু মাদারীপুর হাইস্কুলে সপ্তম শ্রেণিতে ভর্তি হয়েছিলেন এ সময় গ্লকোমা নামের একটি রােগ দেখা দেয় এবং ডাক্তার অপারেশনের পরামর্শ দেন ডাক্তারটি আহমেদ কলকাতা মেডিকেল কলেজে বঙ্গবন্ধুর চোখের অপারেশন করেন চোখের অসুখের কারণে বঙ্গবন্ধুর চার বছর পড়াশােনায় বিঘ্ন ঘটে ১৯৩৭ সালে বঙ্গবন্ধু আবার পড়াশােনা শুরু করেন

তবে এবার আর পুরােনাে স্কুলে নয়, কারণ তার সহপাঠীরা তাকে পেছনে ফেলে গেছেন বঙ্গবন্ধুর পিতা শেখ লুঙ্কর রহমান ছেলেকে গােপালগঞ্জ মিশন স্কুলে ভর্তি করে দেন এ স্কুল থেকেই ১৯৪২ সালে বঙ্গবন্ধু এন্ট্রান্স (এসএসসি) পাস করেন এরপর তিনি উচ্চশিক্ষার জন্য কলকাতায় চলে যান ভর্তি হন ইসলামিয়া কলেজে (বর্তমান মওলানা আজাদ কলেজ) ওই কলেজ থেকে তিনি ১৯৪৪ সালে আইএ পাস করে একই কলেজ থেকে ১৯৪৭ সালে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে ইতিহাস ও রাষ্ট্রবিজ্ঞানে বিএ পাস করেন

সে বছর ভারত ভাগ হয়ে পাকিস্তান রাষ্ট্রের জন্ম হলে তিনি কলকাতা থেকে জন্মভূমি পূর্ববঙ্গে চলে আসেন ১৯৪৭ সালের ১ ডিসেম্বর উচ্চশিক্ষার জন্য ভর্তি হন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগে ১৯৪৭-৪৮ শিক্ষাবর্ষে প্রথম বর্ষের রেজিস্ট্রেশন নম্বর ৬০৫৷ ক্লাস রােল ছিল ১৬৬

বঙ্গবন্ধুর পিতার ইচ্ছা ছিল ছেলে আইনজীবী হবেন প্রয়ােজনে রাজনীতিও করবেন বঙ্গবন্ধুর পিতা শেখ লুত্যর রহমান বঙ্গবন্ধুকে লন্ডনে গিয়ে ব্যারিস্টারি পড়ে আসার জন্য বলেছিলেন এ জন্য তিনি সব সম্পত্তি বিক্রি করে দিতে চেয়েছিলেন কিন্তু বঙ্গবন্ধু পিতার সম্পত্তি বিক্রির অর্থে ব্যারিস্টারি পড়ার জন্য লন্ডনে যেতে রাজি হননি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর ছাত্রজীবন ছিল খুবই সংক্ষিপ্ত

তাঁর ছাত্রজীবনের উল্লেখযােগ্য সময় কাটে কলকাতায় তিনি সেখানে একাধারে ছয় বছর (১৯৪২-৪৭) ছাত্রজীবন অতিবাহিত করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর ছাত্রজীবনের স্থায়িত্ব ছিল মাত্র ১৫ মাস ১৯৪৯ সালের ৩ মার্চ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণির কর্মচারীরা বিভিন্ন দাবিতে ধর্মঘট করেন বঙ্গবন্ধু তাঁদের এ দাবির প্রতি সমর্থন করতে গিয়ে ছাত্রত্ব হারান বঙ্গবন্ধুর বহিষ্কার আদেশের তারিখ ২৬ মার্চ ১৯৪৯ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিষ্কার আদেশ প্রত্যাহারের তারিখ ১৪ আগস্ট ২০১০

বঙ্গবন্ধুর শিক্ষকগণ : বঙ্গবন্ধুকে বাসায় পড়াতেন কাজী আবদুল হামিদ এমএসসি বঙ্গবন্ধু রাজনীতির প্রথম দীক্ষা গ্রহণ করেন হােসেন শহীদ সােহরাওয়ার্দীর কাছ থেকে সােহরাওয়ার্দী তাই শেখ মুজিবের রাজনৈতিক জীবনের দীক্ষাগুরু তিনি রাজনীতির মাঠে যাত্রা শুরু করেছিলেন ১৯৩৯ সালে, মিশনারি স্কুলে পড়ার সময় থেকেই এ বছর স্কুল পরিদর্শনে এসেছিলেন তদানীন্তন অবিভক্ত বাংলার মুখ্যমন্ত্রী শেরেবাংলা এ কে ফজলুল হক এবং পরে বাংলার প্রধানমন্ত্রী এমনকি পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পালনকারী হােসেন শহীদ সােহরাওয়ার্দী বঙ্গবন্ধু স্কুলের ছাদ সংস্কারের দাবির ওপর ভিত্তি করে একটি দল নিয়ে তাঁদের কাছে যান যার নেতৃত্ব দিয়েছিলেন তিনি বঙ্গবন্ধু ১৯৪০ সালে নিখিল ভারত মুসলিম ছাত্র ফেডারেশনে যােগ দেন পরে কলকাতা ইসলামিয়া কলেজে তিনি সক্রিয়ভাবে রাজনীতিতে যােগ দেন

প্রশ্নোত্তরে বঙ্গবন্ধু

১. বঙ্গবন্ধু কোথায় কখন জন্মগ্রহণ করেন?
উত্তর : ১৭ মার্চ ২০২০ সালে, তকালীন গােপালগঞ্জ মহকুমার পাটগাতী ইউনিয়নের টুঙ্গিপাড়া গ্রামে

২. বঙ্গবন্ধুর পিতার নাম কী?
উত্তর : শেখ লুৎফর রহমান

৩. বঙ্গবন্ধুর মাতার নাম কী?
উত্তর : সায়েরা বেগম

৪. জাতির জনক বঙ্গবন্ধু পিতা-মাতার কততম সন্তান | ছিলেন?
উত্তর : তৃতীয়, ভাইদের মধ্যে বড়

৫. জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর কয় ভাইবােন ছিলেন?
উত্তর : চার বােন ও দুই ভাই (ছয় ভাইবােন ছিলেন)

৬. জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ডাকনাম কী ছিল?
উত্তর : খােকা

৭. গ্রামবাসী বঙ্গবন্ধুকে কী নামে ডাকতেন?
উত্তর : মিয়াভাই

৮. মুজিব শব্দের অর্থ কী?
উত্তর : উত্তরদাতা বা সঠিক উত্তরদাতা

৯. বঙ্গবন্ধুর স্ত্রীর নাম কী ছিল?
উত্তর : বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব

১০. বঙ্গবন্ধুর মােট কয়জন সন্তান?
উত্তর : পাঁচজন (তিন ছেলে দুই মেয়ে)

১১. বঙ্গবন্ধুর স্কুলজীবন কোথায় শুরু হয়?
উত্তর : ১৯২৭ সালে সাত বছর বয়সে স্থানীয় গিমাডাঙ্গা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে

১২. গিমাডাঙ্গা স্কুলে বঙ্গবন্ধু কোন ক্লাস পর্যন্ত পড়ালেখা
করেন? উত্তর : তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত

১৩. বঙ্গবন্ধু চতুর্থ শ্রেণিতে কোথায় ভর্তি হন?
উত্তর : গােপালগঞ্জ পাবলিক স্কুলে

১৪.কোন শ্রেণিতে পড়ার সময় বঙ্গবন্ধুর চোখের রােগ দেখা দেয়?
উত্তর : সপ্তম শ্রেণিতে পড়ার সময়, ১৯৩৪ সালে

১৫. কোথায় বঙ্গবন্ধুর চোখের চিকিৎসা হয়?
উত্তর : কলকাতায়

১৬. বঙ্গবন্ধু গােপালগঞ্জ মিশন স্কুলে কোন শ্রেণিতে ভর্তি হন?
উত্তর : সপ্তম শ্রেণিতে, ১৯৩৭ সালে

১৭. চোখের রােগের কারণে বঙ্গবন্ধুর মােট কত বছর পড়ালেখায় বিঘ্ন ঘটে?
উত্তর : চার বছর

১৮. বঙ্গবন্ধু কত সালে, কোন স্কুল থেকে এন্ট্রাস (এসএসসি) পাস করেন?
উত্তর : ১৯৪২ সালে গােপালগঞ্জ মিশন স্কুল থেকে

১৯. কোথায় বঙ্গবন্ধু উচ্চমাধ্যমিক পড়াশােনা করেন?
উত্তর : কলকাতার ইসলামিয়া কলেজে (বর্তমান মওলানা আজাদ কলেজ)

২০. কোন কলেজ থেকে বঙ্গবন্ধু আইএ বা উচ্চমাধ্যমিক পাস করেন?
উত্তর : কলকাতার ইসলামিয়া কলেজ থেকে, ১৯৪৪ সালে

২১. কোন কলেজ থেকে বঙ্গবন্ধু বিএ পাস করেন?
উত্তর : কলকাতার ইসলামিয়া কলেজ থেকেই ১৯৪৭ সালে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে ইতিহাস ও | রাষ্ট্রবিজ্ঞানে বিএ পাস করেন

২২. বঙ্গবন্ধু ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে কোন বিষয়ে কত সালে ভর্তি হয়েছিলেন?
উত্তর : আইন বিভাগে, ১৯৪৭ সালের ১ ডিসেম্বর

২৩. কার অনুপ্রেরণায় বঙ্গবন্ধু আইন বিভাগে ভর্তি হয়েছিলেন?
উত্তর : তাঁর পিতা শেখ লুৎফর রহমান

২৪. বঙ্গবন্ধুর প্রিয় কবি ছিলেন কারা?
উত্তর : রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, কাজী নজরুল ইসলাম, সুকান্ত ভট্টচার্য ও জীবনানন্দ অন্যতম

২৫. বিদেশি লেখকদের মধ্যে বঙ্গবন্ধুর প্রিয় লেখক কারা ছিলেন?
উত্তর : কার্ল মার্ক্স, বার্ট্রান্ড রাসেল, বার্নাড শ প্রমুখ

২৭. বঙ্গবন্ধু কত সাল থেকে নিয়মিত চশমা পরা শুরু করেন?
উত্তর : ১৯৩৬ সাল থেকে

২৮. অসমাপ্ত আত্মজীবনী’তে শুরুতেই বঙ্গবন্ধু কোন ও রাজনৈতিক নেতার কথা স্মরণ করেন?
উত্তর : হােসেন শহীদ সােহরাওয়ার্দীর কথা

২৯. শেখ বংশের গােড়াপত্তন করেন কে?
উত্তর : শেখ বােরহানউদ্দিন

৩০. স্কুলজীবনে বঙ্গবন্ধু কোন কোন খেলা খেলতেন?
উত্তর : ফুটবল, ভলিবল ও হকি :

৩১. স্কুলজীবনে বঙ্গবন্ধু পিতা ছাড়া আরেকজনকে ভয় পেতেন, তিনি কে?
উত্তর : আবদুল হাকিম মিয়া তিনি তাঁর পিতার অন্তরঙ্গ বন্ধু ছিলেন

৩২. বঙ্গবন্ধু ইসলামিয়া কলেজের বেকার হােস্টেলের কত নম্বর কক্ষে থাকতেন?
উত্তর : ২৪ নম্বর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button