জীবনযাপন

দীর্ঘ জীবন পেতে নিয়মিত হাটার অভ্যাস গড়ে তুলুন

দীর্ঘ জীবন লাভের সম্ভাবনা বাড়াতে চাইলে রােজ ৭ হাজার কদম হাঁটলে সম্ভবত ভালাে ফল পাওয়া যাবে বলে নতুন দুটি গবেষণায় উঠে এসেছে। দীর্ঘ জীবন লাভের সম্ভাবনা বাড়াতে চাইলে রােজ ৭ হাজার কদম হাঁটলে সম্ভবত ভালাে ফল পাওয়া যাবে বলে নতুন দুটি গবেষণায় উঠে এসেছে। অথবা সপ্তাহে আড়াই ঘন্টা। টেনিস, সাইক্লিং, সাঁতার, জগিং কিংবা ব্যাডমিন্টনের মতাে খেলায় সময় দিলেও একই ফল পাওয়া যাবে।

গবেষণা দুটিতে দেখা যায়, সঠিক পরিমাণে সঠিক ধরনের ব্যায়াম বা শারীরিক পরিশ্রম। অকালমৃত্যুর ঝুঁকি ৭০ শতাংশ পর্যন্ত কমায়। এ দুই গবেষণার আওতায় কয়েক দশক ধরে ১০ হাজারের বেশি নারী-পুরুষকে পর্যবেক্ষণ করা হয়েছে। তবে গবেষকরা এ-ও বলেছেন যে, শারীরিক পরিশ্রমের সুফল পাওয়ার সর্বোচ্চ সীমা থাকতে পারে।

যারা পরিশ্রম বেশি করেন, তারা যে অল্প পরিশ্রমীদের চেয়ে বেশিদিন। বাঁচেন, তা ইতােমধ্যে প্রমাণিত। তবে ঠিক কী পরিমাণ পরিশ্রম করলে বেশি সুফল পাওয়া যায়, তা এখনাে সুনির্দিষ্টভাবে বের করতে পারেননি বিজ্ঞানীরা। এমনকি অতিরিক্ত ব্যায়ামের ফলে আয়ুষ্কাল কমে যায় কি না, তা-ও নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

নতুন গবেষণায় এ সমস্যাগুলাের ওপরই বেশি গুরুত্ব দেওয়া হয়েছিল। প্রথম গবেষণায় গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে হাটার ওপর। বেশিরভাগ মানুষই মনে করেন রােজ ১০ হাজার কদম হাঁটা স্বাস্থ্যের জন্য ভালাে। তবে ঠিক ১০ হাজার কদমই যে হাঁটতে হবে, তার কোনাে বিজ্ঞানসম্মত প্রমাণ নেই।

গবেষকরা দেখেন যে, যেসব মানুষ দিনে অন্তত ৭ হাজার কদম হাঁটে, তারা সাধারণত তুলনামূলক বেশি আয়ু পান। হাঁটার পরিমাণ যত বাড়ে, দীর্ঘ জীবন লাভ করার সম্ভাবনাও ততই বাড়ে। যারা দৈনিক ৯ হাজার কদমের বেশি হাঁটেন, তাদের অকালমৃত্যুর ঝুঁকি ৭০ শতাংশ পর্যন্ত কমে যায়। তবে ১০ হাজার কদম পর আর কোনাে উপকারিতা দেখা যায়নি।

যারা প্রতিদিন ১০ হাজার কদমের বেশি হাঁটেন, তাদের ৭ হাজার কদম হাঁটা ব্যক্তিদের চেয়ে বেশিদিন বাঁচতে। দেখা গেছে খুব কমই। দ্বিতীয় গবেষণায় দেখা হয়েছে সপ্তাহে কত ঘণ্টা খেলাধুলা করলে (সাইক্লিং, টেনিস, সাঁতার, হ্যান্ডবল, ওয়েট লিফটিং, ব্যাডমিন্টন, ফুটবল ও অন্যান্য) বা শারীরিক পরিশ্রম করলে স্বাস্থ্যের উপকার হয়।

গবেষকরা পর্যবেক্ষণে দেখতে পেয়েছেন, যারা সপ্তাহে ২ দশমিক ৬ ঘণ্টা, অর্থাৎ দিনে ৩০ মিনিট শারীরিক পরিশ্রম করেন, তারা দীর্ঘ সুস্থ জীবন লাভ করেন। কিন্তু যারা সপ্তাহে ১০ ঘন্টা বা দিনে ৯০ মিনিটের মতাে পরিশ্রম করেন, তাদের বেলায় এই উপকারিতা প্রায় একতৃতীয়াংশ কমে আসে।

এ দুটো গবেষণা থেকে দেখা যাচ্ছে, শারীরিক পরিশ্রম দীর্ঘজীবন লাভের জন্য সহায়ক, কিন্তু অতিরিক্ত পরিশ্রম আয়ু বাড়াতে সরাসরি কোনাে কাজে আসে না। কাজেই ব্যায়াম বা পরিশ্রম থেকে সুফল পেতে হলে আমাদের উচিত সঠিক মাত্রায় এবং সঠিক উপায়ে সেটা করা। দীর্ঘ সুস্থ জীবন। লাভের জন্য দিনের ৭-৮ হাজার কদম হাঁটা। অথবা ৩০ থেকে ৪৫ মিনিট শারীরিক পরিশ্রম করাই যথেষ্ট।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button